Header Ads

খালেদার আপিলের রায় আজ

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় পাঁচ বছরের কারাদণ্ডের বিরুদ্ধে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার করা আপিলের রায় আজ মঙ্গলবার ঘোষণা করবেন হাইকোর্ট। একইসঙ্গে অন্য দুই আসামির আপিল ও খালেদার সাজা বাড়াতে দুদকের করা রিভিশনের রায় ঘোষণা করা হবে। এ রায় ঘোষণা করবেন বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মো.মোস্তাফিজুর রহমানের হাইকোর্ট বেঞ্চ।
চলতি বছরের ৮ ফেব্রুয়ারি জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে  পাঁচ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেন আদালত। একইসঙ্গে খালেদা জিয়াসহ ছয় আসামিকে ১০ বছর করে কারাদণ্ড দেওয়া হয়। আসামিদের সবাইকে ২ কোটি ১০ লাখ ৭১ হাজার ৬৪৩ টাকা ৮০ পয়সা অর্থদণ্ডে দণ্ডিত করা হয়। রায়ে এই অর্থদণ্ডের টাকা প্রত্যেককে সমান অঙ্কে প্রদান করার কথা বলা হয়।
কিন্তু আদালতের এই রায়ের(কারাদণ্ড ও অর্থদণ্ড) বিরুদ্ধে আপিল করেন খালেদা জিয়া। এ ছাড়াও সাজার রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করেন কারাগারে থাকা অপর আসামি কাজী সালিমুল হক কামাল ও শরফুদ্দিন আহমেদ পৃথক আপিল করেন। অপরদিকে খালেদা জিয়ার সাজা বৃদ্ধি চেয়ে দুদক একটি আবেদন করে, যার ওপর শুনানি নিয়ে ২৮ মার্চ রুল দেন আদালত। এই পৃথক তিনটি আপিল ও দুদকের আবেদনের ওপর গতকাল সোমবার বিকেলে শুনানি হয়। পরে শুনানি শেষে এই মামলার রায় ঘোষণার জন্য আজ মঙ্গলবার দিন ধার্য করেন আদালত। 
আদালতে এদিন দুদকের পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট খুরশিদ আলম খান। তবে খালেদা জিয়ার পক্ষে কোনো আইনজীবী উপস্থিত ছিলেন না।
আরো জানা গেছে, খালেদা জিয়াসহ তিন আসামির আপিল এবং দুদকের রিভিশন এক নম্বরে রাখা হয়েছে।
এ ব্যাপারে দুদকের আইনজীবী অ্যাডভোকেট খুরশিদ আলম খান বলেন, খালেদা জিয়ার করা আপিলসহ তিন আসামির আপিল ও দুদকের সাজা বৃদ্ধি চেয়ে আবেদনের ওপর ৩২ দিন শুনানি হয়। শুনানি শেষে হাইকোর্ট মঙ্গলবার রায়ের জন্য দিন ধার্য করেছেন।

No comments

Powered by Blogger.