Header Ads

কোটা বাতিলের সুপারিশ মন্ত্রিসভায় উঠছে আজ


সরকারি চাকরিতে কোটা না রাখার সুপারিশসহ বেশ কয়েকটি প্রস্তাবনা আজ বুধবার কেবিনেটে পেশ করা হবে বলে জানা গেছে। মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।
প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে অনুষ্ঠিতব্য মন্ত্রিসভা বৈঠকে কোটা সংস্কার পর্যালোচনা কমিটির রিপোর্টটি তোলা হবে। এই রিপোর্টের ওপর আলোচনা করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেবে মন্ত্রিসভা।
উল্লেখ্য, সরকারি চাকরিতে কোটা পদ্ধতি সংস্কারের দাবিতে চাকরিপ্রার্থীদের আন্দোলনের মধ্যে গত ২ জুলাই মন্ত্রিপরিষদ সচিবকে প্রধান করে সাত সদস্যের কমিটি গঠন করে সরকার।
কেবিনেট সচিবকে আহ্বায়ক করে কমিটিতে সদস্য হিসেবে রাখা হয়েছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সচিব, অর্থ মন্ত্রণালয়ের সচিব, মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব, পাবলিক সার্ভিস কমিশন- পিএসসির সচিব ও প্রধানমন্ত্রীর দফতরের ভারপ্রাপ্ত সচিবকে।
প্রাথমিকভাবে ১৫ কার্যদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে বলা হলেও পরে আরো ৯০ কার্যদিবস সময় পায় এ কমিটি। গত ১৭ সেপ্টেম্বর মন্ত্রিসভার বৈঠক শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম সাংবাদিকদের জানিয়েছিলেন, ওই দিন তারা প্রধানমন্ত্রীর কাছে প্রতিবেদন জমা দিয়েছেন।
মন্ত্রিপরিষদ সচিব ওই দিন বলেন, আমাদের ফাইন্ডিংস হলো নবম থেকে ১৩তম গ্রেড পর্যন্ত অর্থাৎ আগে যে প্রথম ও দ্বিতীয় শ্রেণি বলা হতো, সেগুলো নিয়োগের ক্ষেত্রে কোনো কোটা থাকবে না। প্রথম ও দ্বিতীয় শ্রেণির পদগুলোতে মেধাভিত্তিক নিয়োগ হবে।

No comments

Powered by Blogger.