Header Ads

অল্পের জন্য ট্রিপল সেঞ্চুরি হলো না লিটন দাসের

সময়ের সাথে সাথে রানমেশিন হয়ে উঠছেন লিটন দাস। জাতীয় দলের এই উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান ঘরোয়া লিগে সেঞ্চুরির পর সেঞ্চুরি করে যাচ্ছেন। এবার হাঁকালেন ডাবল সেঞ্চুরি। শুধু ডাবল নয়; বাংলাদেশের দ্বিতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে ট্রিপল সেঞ্চুরি মিস করেছেন অল্পের জন্য। আজ বৃহস্পতিবার বিসিএলের শেষ রাউন্ডের তৃতীয় দিনে রাজশাহীতে পূর্বাঞ্চলের হয়ে মধ্যাঞ্চলের বিপক্ষে ২৭৪ রানে আউট হয়েছেন  লিটন।
১২৫ বলে ১৩৯ রান নিয়ে দিনের খেলা শুরু করেছিলেন লিটন। দিনের শুরুতে বেশি আগ্রাসী ছিলেন আগের দিনের আরেক অপরাজিত ব্যাটসম্যান আফিফ। প্রথম ঘণ্টায় লিটন ছিলেন একটু ধীরস্থির। সময়ের সাথে সাথে তার ব্যাটেও আবার এসেছে রানের জোয়ার। লাঞ্চের আগের ওভারে বাঁহাতি স্পিনার ইলিয়াস সানিকে বাউন্ডারি মেরে মাত্র ১৯০ বলে ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় ডাবল সেঞ্চুরি স্পর্শ করেন। 
লাঞ্চের পর মধ্যাঞ্চলের ডাবল সেঞ্চুরিয়ান অনিয়িমিত বোলার আব্দুল মজিদের বলে সিঙ্গেল নিয়ে ক্যারিয়ারে প্রথমবার স্পর্শ করেন আড়াইশ। আফিফের সঙ্গে জুটির ট্রিপল সেঞ্চুরি হওয়ার সুযোগ থাকলেও সানির বলে ক্যারিয়ার সেরা ১৪২ করে আউট হয়ে যান আফিফ। চতুর্থ উইকেট জুটি ভাঙে ২৯৮ রানে। লিটনও আড়াইশর পর খেলছিলেন সাবধানে। শেষ পর্য্নত সেই সানির বলেই এলবিডব্লিউ হয়ে শেষ হয় তার ৩৫ চার ও ২ ছক্কায় ২৯৩ বলে ২৭৪ রানের অসাধারণ ইনিংস।
বাংলাদেশের প্রথম প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে একমাত্র ট্রিপল সেঞ্চুরিয়ান রকিবুল হাসান। ২০০৭ সালের মার্চে জাতীয় লিগে বরিশালের হয়ে অপরাজিত ৩১৩ রান করেছিলেন রকিবুল। এর আগে ট্রিপল সেঞ্চুরির দ্বারপ্রান্ত থেকে ফিরে গেছেন মার্শাল আইয়ুব আর মোসাদ্দেক হোসেন, নাসির হেসেনরা। গত ডিসেম্বরে জাতীয় লিগে ২৯৫ রানে আউট হন নাসির হোসেন। 

No comments

Powered by Blogger.