Header Ads

২০১৭ সালে বিদায় নিল যেসব প্রযুক্তি

অন্যান্য ক্ষেত্রের মতো প্রযুক্তিক্ষেত্রেও পণ্য ও সেবার আসা-যাওয়া দেখতে পাওয়া যায়। কিছু প্রযুক্তি জনপ্রিয় হয়, আবার কিছু প্রযুক্তি হারিয়ে যায়। ২০১৭ সালটিও ব্যতিক্রম নয়। এ বছর বিদায় নিয়েছে বেশ কিছু প্রযুক্তি ও পণ্য। এসব পণ্য একসময় ছিল অনেক জনপ্রিয়। চলুন জেনে আসি, এ রকম কয়েকটি প্রযুক্তিপণ্য সম্পর্কে:উইন্ডোজ ফোন
বিদায় উইন্ডোজ ফোন। একসময়ের জনপ্রিয় এ ফোন আর তৈরি করবে না মাইক্রোসফট। এ বছর মাইক্রোসফট আনুষ্ঠানিকভাবে উইন্ডোজ ফোনকে বিদায় জানানোর ঘোষণা দিয়েছে। গত অক্টোবরে মাইক্রোসফটের অপারেটিং সিস্টেম বিভাগের করপোরেট ভাইস প্রেসিডেন্ট জো বেলফাইওর সম্প্রতি কয়েকটি টুইট করে উইন্ডোজ ১০ মোবাইল অপারেটিং সিস্টেমের জন্য নতুন ফিচার বা হার্ডওয়্যার তৈরি থেকে সরে আসার ঘোষণা দেন। বিশ্বজুড়ে স্মার্টফোন বাজারে উইন্ডোজ ফোনের দখল ছিল মাত্র দশমিক ১ শতাংশ। তাই এ ধরনের ঘোষণা মোটেও আশ্চর্যের কিছু ছিল না।মাইক্রোসফট কাইনেক্ট
কাইনেক্টও মাইক্রোসফটের পণ্য। এক্সবক্স ৩৬০ ও এক্সবক্স ওয়ান গেমিং কনোসেলের মোশন সেন্সিং যন্ত্র কাইনেক্টকে বিদায় জানাল প্রতিষ্ঠানটি। ২০১০ সালে বাজারে এসেছিল উইন্ডোজ এটি। ২০১১ সালে দ্রুত বিক্রি হওয়া ডিভাইস হিসেবে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ড গড়েছিল। কিন্তু মাত্র সাত বছরের মধ্যেই এটি বিদায় নিল।থ্রিডি টিভি
মাত্র কয়েক বছর আগেও থ্রিডি টিভি ছিল আকর্ষণীয় একটি প্রযুক্তিপণ্য। ২০১৭ সালে এলজি, সনির মতো বড় বড় টিভি নির্মাতা তাদের টিভি থেকে থ্রিডি প্রযুক্তি সমর্থনসুবিধা সরিয়ি নেয়। ২০১৬ সালে স্যামসাং এ প্রযুক্তি থেকে সরে দাঁড়িয়েছিল। টিসিএল কিংবা শার্পের মতো প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকেও বিশ্বের বৃহত্তম ইলেকট্রনিক ট্রেড শো সিইএসে থ্রিডি টিভির ঘোষণা দেয়নি। আইপড শাফল ও আইপ্যাড ন্যানো
এ বছর অ্যাপল তাদের শাফল ও আইপড ন্যানো বিক্রি বন্ধ করার ঘোষণা দেয়। একসময়ের জনপ্রিয় গান শোনার ডিভাইস আইপ‍ড ন্যানো ও শাফল। ন্যানো ও শাফলের বিক্রি কমে যাওয়ায় এ সিদ্ধান্ত নেয় প্রতিষ্ঠানটি। ২০০১ সালে প্রথম আইপড উন্মোচন করেন অ্যাপলের সহপ্রতিষ্ঠাতা স্টিভ জবস। এরপর ২০০৫ সালে শাফল উন্মুক্ত করে প্রতিষ্ঠানটি। ডিভাইসটিতে দুই জিবি জায়গায় প্রায় ৫০০ গান স্টোর করা যেত।ট্যাংগো
এ বছর গুগল তাদের অগমেন্টেড রিয়ালিটি প্ল্যাটফর্ম ট্যাংগো বন্ধ করার ঘোষণা দিয়েছে। স্মার্টফোনে অগমেন্টেড প্রযুক্তি চালুর উচ্চাভিলাষী লক্ষ্য নিয়ে প্রায় তিন বছর আগে এ প্ল্যাটফর্ম চালু করে গুগল।গুগল ক্রোম অ্যাপস
এ বছরের ডিসেম্বরে এসে গুগল তাদের ক্রোম ওয়েব স্টোরে অ্যাপ বিভাগটি বন্ধ করে দেয়। ক্রোম অ্যাপ নির্মাতাদের ই-মেইল দিয়ে জানায়, আগে তৈরি করা অ্যাপ কাজ করলেও ২০১৮ সালের প্রথম তিন মাসের মধ্যে তা সরিয়ে ফেলা হবে।জিটক
এ বছরে আনুষ্ঠানিকভাবে বন্ধ হয়ে গেল জিটক বা জিচ্যাট সেবাটি। ২০০৫ সালে মেসেজিং সেবাটি চালু করেছিল গুগল। এর পরিবর্তে গুগল হ্যাংআউটস চালু হয়।

No comments

Powered by Blogger.