ফার্দিনান্দ: ভালো ষাঁড়ের গল্প

চেহারাই কি সবকিছু? অথচ দেখতে কেমন সেটা দিয়েই সবাই কোন মানুষটা কেমন তা ভেবে নেয়। ফার্দিনান্দের বেলায়ও এমনটাই ঘটেছে। একটু ভুল হয়ে গেল। ‘ফার্দিনান্দ’ মানুষ নয়, একটি ষাঁড়। বিশালদেহী ফার্দিনান্দ দেখতেই কেবল বিশাল আর ভয়ংকর। বাস্তবে সে খুব বড় মনের ষাঁড়। ষাঁড়ের লড়াই করতে চায় না। সবাইকে ভালোবাসতে, সবার সঙ্গে মিলেমিশে থাকতে চায়। অথচ ফার্দিনান্দকে দেখে সবাই ভয় পায়। দূরে চলে যায়। এ নিয়ে ফার্দিনান্দের মনে অনেক কষ্ট। এই ফার্দিনান্দই একবার ভুল করে চলে যায় পরিবার থেকে অনেক অনেক দূরে, স্পেনে। এবার? ফার্দিনান্দ বাড়ি ফিরতে পারবে তো? বাইরে থেকে দেখতে যেমনই হোক, ও যে খুব ভালো একটা ষাঁড়, সেটা সবাইকে বোঝাতে পারবে তো?

জানতে হলে চলে যান প্রেক্ষাগৃহগুলোতে। অনেক দিন পর মনের মতন একটি অ্যানিমেশন মুভি দেখেই আসুন সপরিবার। ইতিমধ্যে বেশ উপভোগ করছে দর্শকেরা ফার্দিনান্দকে। তাহলে আপনিই বা আর ঘরে বসে কেন? কেবল সাধারণ একটি ষাঁড়ের হারিয়ে যাওয়ার গল্পই না, ফার্দিনান্দ আপনাকে হাসাবে, মন ভালো করে দেবে, আনন্দ দেবে। রিও মুভিটি ভালোভাবে এখনো মনে গেঁথে আছে আপনার? রিও চলচ্চিত্রের নির্মাতা কার্লোস সালডানহার হাতের জাদু আছে ফার্দিনান্দ-এও। ফার্দিনান্দ এসেছে ব্লু স্কাই স্টুডিও এবং টোয়েন্টিথ সেঞ্চুরি ফক্স অ্যানিমেশনের হাত ধরে। মুনরো লিফ আর রবার্ট লসনের সেই অসম্ভব মিষ্টি বই স্যা স্টোরি অফ ফার্দিনান্দ-এর কথা মনে আছে? সেই ফার্দিনান্দকেই এবার রুপালি পর্দায় আনা হচ্ছে।

ফার্দিনান্দের বাড়ি ফেরার রোমাঞ্চকর যাত্রায় তার সঙ্গে থাকছেন জন সিনা, কেইট ম্যাককিনন, গিনা রড গ্রিজ, অ্যান্থনি অ্যান্ডারসন, ববি ক্যানা ভেল, ডেভিড টেনান্ট এবং হলিউডের আরও অনেকে। ফার্দিনান্দকে অবশ্য পর্দায়তেই নয়, ইচ্ছা করলে বিভিন্ন খেলায়ও উপভোগ করতে পারবেন আপনি। ইতিমধ্যে টোয়েন্টিথ সেঞ্চুরি ফক্স অ্যানিমেশন বেশ কয়েকটি খেলা তৈরি করেছে ফার্দিনান্দ ছবিটিকে কেন্দ্র করে। ফার্দিনান্দ মুক্তি পেয়েছে ১৫ ডিসেম্বর। তবে এর মধ্যেই বেস্ট অ্যানিমেটেড ফিচার ফিল্ম এবং বেস্ট অরিজিনাল সংয়ের (হোম গানটির জন্য) মতন বেশ কিছু পুরস্কারের মনোনয়ন পেয়ে গেছে চলচ্চিত্রটি। স্টার ওয়ার: দ্য লাস্ট জেডির সঙ্গেমুক্তি পেয়েছিল ফার্দিনান্দ। প্রথম সপ্তাহের আনুমানিক আয় ১৩ দশমিক ৩ মিলিয়ন নিয়ে বর্তমানে তালিকার দ্বিতীয় অবস্থানে আছে মুভিটি।

ফার্দিনান্দ-এর জন্য অবশ্য সবার অপেক্ষা শুরু হয়েছিল সেই ২০১১ সাল থেকে। সেবার দ্য স্টোরি অব ফার্দিনান্দ বইয়ের স্বত্ব লেখক মুনরো লিফের কাছ থেকে কিনে নেয় ফক্স। আর তারপর ঘোষণা দেয় নাম কেটেছেঁটে ব্লু স্কাই স্টুডিওর প্রযোজনায় ফার্দিনান্দ নামে একটি মুভি নির্মাণের। এরপর কিছুদিন পরপরই শোনা গিয়েছে ফার্দিনান্দ সম্পর্কে, মুভির নতুন চরিত্রগুলো সম্পর্কে। প্রথমে মুক্তির তারিখ দেওয়া হয়েছিল ২০১৭ সালের ১ এপ্রিল। ২০১৬ সালে সেই তারিখ পিছিয়ে নেওয়া হয় ২১ জুলাই। পরে সেটা আবার পিছিয়ে করা হয় ২২ ডিসেম্বর। অস্থির হয়ে উঠেছিল একসময় দর্শক। তাদের সেই অস্থিরতা কাটিয়ে অবশেষে এক সপ্তাহ সামনে এনে ২০১৭ সালের ১৫ ডিসেম্বর, ঘোষণার প্রায় সাত বছর পর এবার মুক্তি পেল ফার্দিনান্দ। চলচ্চিত্রটির সংগীতায়োজন করেছেন নিক জোনাস।

Comments