ইন্টারনেট টেলিভিশন প্রযুক্তির বহিঃপ্রকাশ ঘটালো সনি

প্রযুক্তিকে এখন আর সিমাবদ্ধতায় বেধে রাখা যাবে না। এক প্রযুক্তি অন্যটার সাথে মিশে গিয়ে সৃষ্টি হচ্ছে নতুন বিপ্লব অনেকটা রাসায়নিক বিক্রিয়ার মতোই। অনেক আগে থেকেই গুগল টিভি তাদের পরীক্ষামূলক সমপ্রচার চালিয়ে এসেছে। লক্ষ্য ছিল টেলিভিশন প্রযুক্তিকেও নিজেদের হাতের মুঠোয় নিয়ে আসা। এ বেপারটা এত দিন যতটা কল্পনা হয়ে আসছিল, এখন থেকে সেটা ততটাই বাস্তবে রূপান্তরিত করতে সনি তাদের ইন্টারনেট সক্রিয় টেলিভিশনের শুভ সুচনা করলো।গতকাল নিওইয়র্কে এই টিভির শুভ সুচনা করা হয়। এই এইচডিটিভি ২৪, ৩২, ৪০, ৪৬ ইঞ্চি মাপে পাওয়া যাবে যার দাম ৪২ হাজার থেকে লাখ টাকা পর্যন্ত হবে। সনি তাদের টিভি প্রযুক্তির জন্য নতুন ধরনের ইন্টারনেট টিভি সফটওয়্যার বানিয়েছে যার মাধ্যমে সহজেই টুইটার, ইউটিউব, হুলু, নেটভিক্স সহ বিভিন্ন লাইফ টিভিরুমেও প্রবেশ করা যাবে।

টিভিটি এন্ড্রয়েড অপারেটিং সিষ্টেমে চলবে, চাইলে কাষ্টমাইজড ক্রোম ব্রাউজারের মাধ্যমে ওয়েব ব্রাউজারও করা যাবে।সনির এ টিভিটির রিমোটটি অত্যন্ত আকর্ষনীয়। সহজ নেভিগেশন ও ইনপুটের মাধ্যমে দুরে বসেই সব ধরেনর কাজ করা যাবে। SonyStyle.com তে কিনতে পাওয়া যাবে এই টেলিভিশন।মোবাইল প্রযুক্তি যেভাবে অনেককে ইন্টারনেট সুবিধার সাথে যুক্ত করতে সক্ষম হয়েছে, একইভাবে এই টিভি প্রযুক্তিও হয়তো সব সময় ইন্টারনেটের সাথে যুক্ত করে ফেলবে আরও গভীরভাবে। আর টিভি চ্যানেলের সিমানা শুধু কয়েকটি প্রতিষ্ঠানের থাকবে না। যে কেউ তাদের ভিডিওগুলো দিয়ে একটি চ্যানেল বানিয়ে নিতে পারবে, সবার কাছে আরও সহজে উপস্থাপনা করতে পারবে। জাস্টিনটিভির মতো সার্ভিসের মাধ্যমে লাইফ সম্প্রচারের হিরিক চলবে হয়তো।

তবে আমাদের মতো কমগতির ইন্টারনেট প্রযুক্তির সাথে যুক্তদের মার্কেট দখল করতে সনির কতটা সময় লাগবে সেটাই দেখার বেপার।

Comments